Friday, 20 December 2013

কোনও অজানা কবির লেখা

"দিয়েছি তাকে - নিয়েছে সব - মেটেনি তার ক্ষুধা
সে আছে এক জন্ম ভিখারিনী
দু'হাত পেতে রয়েছে আজও, অনির্বচনীয়
চিকুর মেলে সুদূরে নন্দিনী

প্রথমে তাকে দিয়েছি ঠোঁট তবুও বলে চাই
নিবিড়তম পাতা সে অঞ্জলি
অতঃপর ছিলায় টান ধনুকে জুড়ি শর
দু'চোখ আমি উপড়ে তুলে আনি

দিলাম তাকে - শ্রবণ দিয়ে বধির হয়ে যাই
বাড়িয়ে তবু সোনালি হাতখানি
শ্রবণহীন অন্ধতায় ভাষণহীন আমি
সূর্য ফোটে ফুলেরা অবিকল
তখনও তার সম্প্রসার দীর্ঘায়িত হাত -
এবারে দাও আত্মা থেকে জল।"